আটক ভারতীয় পাইলটের মুখে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর প্রশংসা, ভিডিও ভাইরাল

ভারতের দু’টি যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করার দাবি তুলে পাকিস্তান জানিয়েছে, তারা ভারতের দুই পাইলটকে আটক করেছে। এদের একজন অভি নন্দন। আটক করার সময়ের যে ভিডিও পাকিস্তান প্রকাশ করেছিল সেখানে অভির মুখ দিয়ে রক্ত ঝরছিল এবং তাকে বিপর্যস্ত লাগছিল। তবে এবার তাকে জিজ্ঞাসাবাদের একটটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে।

ভারতের দু’টি যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করার দাবি তুলে পাকিস্তান জানিয়েছে, তারা ভারতের দুই পাইলটকে আটক করেছে। এদের একজন অভি নন্দন। আটক করার সময়ের যে ভিডিও পাকিস্তান প্রকাশ করেছিল সেখানে অভির মুখ দিয়ে রক্ত ঝরছিল এবং তাকে বিপর্যস্ত লাগছিল। তবে এবার তাকে জিজ্ঞাসাবাদের একটটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ভিডিওতে চায়ের কাপ হাতে অভিকে বলতে শোনা যায়, তিনি পাকিস্তানি সেনাদের আচরণে মুগ্ধ। অভি নন্দন জিজ্ঞাসাবাদ করা পাকিস্তান আর্মির ওই সদস্যকে মেজর বলে সম্বোধন করেন। খবর দ্য ডনের।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে অভিনন্দনকে পাকিস্তানি মেজরের নানা প্রশ্নের মুখোমুখি হতে দেখা যায়। এসময় অভিনন্দন পাকিস্তান সেনাবাহিনীর প্রশংসা করেন। তারা আপদমস্তক ভদ্রলোক বলে মন্তব্য করেন তিনি।

যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত হওয়ার পর তাকে উদ্ধার করায় পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর কর্মকর্তাদের ধন্যবাদ জানান অভি। চা ‘চমৎকার’ হয়েছে বলে তার জন্যও ধন্যবাদ দেন ভারতীয় উইং কমান্ডার।

উইং কমান্ডার অভি নন্দন বলেন, আমি যদি আমার দেশে ফিরে যেতে পারি তখনো আমার অবস্থান পরিবর্তন হবে না। এমন ব্যবহারই আমি অন্য আর্মির কাছ থেকে আশা করি।

এরপর তাকে জিজ্ঞাসা করা হয় ভারতের কোথায় আপনার বাড়ি? উত্তরে তিনি বিনীতভাবে বলেন, মেজর, আমার কি আপনাকে এটা বলার কথা? তবে এটুকু বলি আমার বাড়ি নিম্ন দক্ষিণ ভারতের দিকে।

এরপরের প্রশ্ন ছিল আপনি কি বিবাহিত? অভি বলেন, হ্যাঁ।

পাকিস্তানি মেজর আরও প্রশ্ন করেন, কোন যুদ্ধবিমানটি আপনি চালাচ্ছিলেন? এই প্রশ্নের উত্তরে অভি নন্দন একটু দ্বিধাবোধ করে বলেন, আমি দুঃখিত, আপনারা ইতোমধ্যেই রেকর্ডস পেয়ে তা জেনে থাকবেন।

এরপর তাকে আরও প্রশ্ন করা হয়, আপনার মিশন কী ছিল?

এ প্রশ্নের উত্তরে বিনীতভাবে এড়িয়ে অভিনন্দন বলেন, দুঃখিত আমার এটা আপনাকে বলার কথা না।

প্রসঙ্গত, গত ১৪ ফেব্রুয়ারি বিকেলে কাশ্মীরের পুলওয়ামা জেলায় ভারতের বিশেষায়িত নিরাপত্তা বাহিনী সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্সের (সিআরপিএফ) গাড়িবহরে ভয়াবহ জঙ্গি হামলায় ৪৪ জওয়ান নিহত হন।

জঙ্গিদের মদত দেওয়ার জন্য ইসলামাবাদকে অভিযুক্ত করে এর মোক্ষম জবাব দিতে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ভোরের দিকে পাকিস্তানের বালাকোট শহরে জঙ্গি গোষ্ঠী জইশ-ই-মোহাম্মদের আস্তানায় হামলা চালায় ভারতীয় বিমান বাহিনী। হামলায় প্রায় ৩০০ জঙ্গি নিহত হয় বলে দাবি করে ভারত। এর একদিন পরই ভারতের দু’টি যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত ও দু’জন পাইলট আটক করার দাবি করে পাকিস্তান।

Download Nulled WordPress Themes
Download WordPress Themes Free
Download WordPress Themes Free
Download Nulled WordPress Themes
free download udemy course