আসামের এনআরসি প্রধানকে বদলি

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য আসামের জাতীয় নাগরিক তালিকার (এনআরসি) প্রধান প্রতীক হাজলাকে বদলি করে দিয়েছেন দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। শুক্রবার প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈর সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ তাকে বদলির নির্দেশ দেন। ভারতীয় টেলিভিশন এনডিটিভির প্রতিবেদনে এ খবর জানা গেছে।

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য আসামের জাতীয় নাগরিক তালিকার (এনআরসি) প্রধান প্রতীক হাজলাকে বদলি করে দিয়েছেন দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। শুক্রবার প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈর সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ তাকে বদলির নির্দেশ দেন। ভারতীয় টেলিভিশন এনডিটিভির প্রতিবেদনে এ খবর জানা গেছে।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে অনুযায়ী, আসামে এনআরসির প্রধান ৪৮ বছর বয়সী প্রতীক হাজলাকে বতলি করে মধ্যপ্রদেশে পাঠানো হয়েছে। আসাম-মেঘালয় ক্যাডারের ১৯৯৫ ব্যাচের আইসিএস কর্মকর্তা তিনি। তার বিরুদ্ধে তথ্য অনিয়মের অভিযোগ রয়েছে বলেই এমন পদক্ষেপ নিল আদালত।

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে বলা হয়েছে, আপাতত প্রতীক হাজেলা সর্বোচ্চ মেয়াদে ডেপুটেশনে থাকবেন। অ্যাটর্নি জেনারেল কেকে ভেনুগোপাল প্রধান বিচারপতির কাছে প্রতীক হাজলার বদলির কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, কারণ ছাড়া কোনো নির্দেশ দেয়া হয় না।

আদালতও তার নির্দেশনামায় কোনো কারণ উল্লেখ করেনি। তবে সূত্র বলছে, প্রতীক হাজেলা আন্তঃক্যাডার ডেপুটেশনে যেতে চাওয়ায় সুপ্রিম কোর্ট তাকে অনুমতি দিয়েছে। প্রতীক হাজলা বলেন, ‘আদালত আমাকে নিয়োগ দিয়েছেন, যা বলার আমি আদালতেই বলবো।’

আসামের এনআরসি সংশোধন করার জন্য খসড়া তালিকা তদারকির দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল প্রতীক হাজেলাকে। তিনি ৫০ হাজার কর্মকর্তার একটি দলের নেতৃত্ব দেন। তবে চূড়ান্ত এনআরসি নিয়ে আসামসহ গোটা ভারতে বেশ সমালোচনা ও অভিযোগ ওঠে।

গত ৩১ জুলাই আসামের এনআরসির চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ পায়। তাতে বাদ পড়ে ১৯ লাখ মানুষের নাম। যার মধ্যে ১২ লাখ হিন্দু ধর্মাবলম্বী। রাজ্যের বিভিন্ন মুসলিম সংগঠনও দাবি তোলে, মুসলিম সম্প্রদায়ের অনেকের নাম বাদ দেয়া হয়েছে।

Download Nulled WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Download Nulled WordPress Themes
Download WordPress Themes Free
udemy course download free