ইনস্ট্যান্ট নুডলস যেভাবে আমাদের দেহের মারাত্মক ক্ষতি করছে

দিন দিনই পুরো বিশ্বে বৃদ্ধি পাচ্ছে এই ইনস্ট্যান্ট নুডলসের চাহিদা। কিন্তু এই খাবারটিকে জাঙ্ক ফুড হিসেবে ধরা হয়। একটি গবেষণায় এসেছে যে ইনস্ট্যান্ট নুডলসে এত বেশি পরিমানে সোডিয়াম আছে যা আমাদের দেহে উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, স্ট্রোক এবং কিডনির ক্ষতি করে থাকে।

ইনস্ট্যান্ট নুডলস খুব বেশি জনপ্রিয় বাচ্চাদের টিফিনে, পিকনিকে কিংবা দ্রুত ক্ষুধা নিবারনের জন্য। কিন্তু আপনি কি জানেন এই ইনস্ট্যান্ট নুডলস আমাদের দেহের জন্য কত বেশি ক্ষতিকর।

দিন দিনই পুরো বিশ্বে বৃদ্ধি পাচ্ছে এই ইনস্ট্যান্ট নুডলসের চাহিদা। কিন্তু এই খাবারটিকে জাঙ্ক ফুড হিসেবে ধরা হয়। একটি গবেষণায় এসেছে যে ইনস্ট্যান্ট নুডলসে এত বেশি পরিমানে সোডিয়াম আছে যা আমাদের দেহে উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, স্ট্রোক এবং কিডনির ক্ষতি করে থাকে।

প্রতি প্যাকেট ইনস্ট্যান্ট নুডলসে প্রচুর পরিমানে কার্বোহাইড্রেট, সোডিয়াম অ অন্যান্য উপাদান আছে যা ক্ষতিকর কিন্তু ভিটামিন, ফাইবার, খনিজ পদার্থ নেই বললেই চলে। চলুন তাহলে জেনে নেই কেন ইনস্ট্যান্ট নুডলস আমাদের দেহের জন্য ক্ষতিকর। দেখে নেওয়া যাক সেই তালিকা-

হৃদরোগের আশঙ্কা

ইনস্ট্যান্ট নুডলস-এর মধ্যে লবণের পরিমাণ অনেকটাই বেশি। এবং এই লবণের বেশির ভাগটাই সোডিয়াম। ফলে যারা বেশি মাত্রায় এই জাতীয় নুডলস খান, তাদের শরীরে লবণের মাত্রা বেড়ে যায়, এবং সেই কারণে বাড়তে থাকে রক্তচাপ। তাই ইনস্ট্যান্ট নুডলস সরাসরি ক্ষতি করে হৃদযন্ত্র বা হার্টের।

ক্যানসারের আশঙ্কা

ইনস্ট্যান্ট নুডলস হজম হতে অনেকটা সময় নেয়। যদি তাড়াতাড়ি হজম হয়ে যায়, তাহলেও বিপদ আছে। সে ক্ষেত্রে ব্লাড সুগারের পরিমাণ এবং ইনসুলিনের পরিমাণও গণ্ডগোল করে দিতে পারে এটি। কিন্তু বেশির ভাগ ক্ষেত্রে এই নুডলস হজম হতে দীর্ঘ সময় নেয়।

এবং তাতে বিপদ বাড়ে। কারণ সে ক্ষেত্রে শরীরের মধ্যে টক্সিক পদার্থ অনেক বেশিক্ষণ ধরে এর থেকে নির্গত হয়। বিজ্ঞানের ভাষায় যাদের বলে বিউটিলেটেড হাইড্রক্সিঅ্যানিসোল এবং টি-বিউটিলহাইড্রোকুইনন সেই মারাত্মক ক্ষতিকারক দু’টি যৌগ শরীরে দীর্ঘক্ষণ উপস্থিত থাকে। এই দু’টিই ক্যানসারের মতো অসুখ ঘটাতে পারে শরীরে।

ভ্রুণের ক্ষতির আশঙ্কা

যদিও অন্তঃসত্ত্বা নারীদের এই জাতীয় ইনসট্যান্ট ফুড বা ফাস্ট ফুড খাওয়া একেবারে নিষিদ্ধ। কিন্তু যারা না জেনে গর্ভাবস্থায় এই জাতীয় নুডলস খান, তাদের ভবিষ্যৎ সন্তানের ক্ষতি হতে পারে। এমনকি ভ্রুণ নষ্টও হয়ে যেতে পারে ইনস্ট্যান্ট নুডলস-এ থাকা টক্সিক বা বিষাক্ত পদার্থের কারণে।

ফাইবার আর প্রোটিন নেই

এই ধরনের নুডলস-এ ফাইবারের পরিমাণ খুব কম। এবং এতে প্রোটিনের মাত্রাও কম। ফলত এই জাতীয় নুডলস ওজন বাড়ায়। এবং ওজন বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে আনুষাঙ্গিক সমস্যা হিসেবে হাজারো জিনিস হাজির হয়।

মেটাবলিক সিনডরম

পরিসংখ্যান থেকে দেখা গেছে যারা সপ্তাহে অন্তত একবার ইনস্ট্যান্ট নুডলস খান, তারা এই সমস্যায় ভোগেন মারাত্মকভাবে। ফাস্ট ফুড-এর গোত্রের মধ্যে যারা অন্য খাবার খান, তাদের ক্ষেত্রেও এই সমস্যা ততটা নয়, যতটা ইনস্ট্যান্ট নুডলস-এর ক্ষেত্রে হয়। পুরুষদের থেকে নারীদের এই সমস্যা অনেকটাই বেশি ইনস্ট্যান্ট নুডলস-এর কারণে।

ওবেসিটির আশঙ্কা

ইনস্ট্যান্ট নুডলস-এ থাকে মোনোসোডিয়াম গ্লুটামেট (এমএসজি)। অনেক ইনস্ট্যান্ট খাবারেই এই যৌগ ব্যবহার করা হয়। খাবারের গন্ধ এবং স্বাদ ভালো করার জন্য ব্যবহার করা হয় ওই যৌগটি। এটি শরীরের জন্য ক্ষতিকারক, নাকি ক্ষতিকারক নয়- তা নিয়ে বিতর্ক রয়েছে।

কিন্তু এটা নিয়ে কোনও বিতর্কই নেই- এমএসজি দীর্ঘ সময় ধরে শরীরে গেলে ওজন বৃদ্ধি হয়। এই কারণে এমএসজি চিকিৎসকরাও সেই সব রোগীদের দেন, যারা দুর্বলতা বা কম ওজনের সমস্যায় ভুগছেন। কারণ ওষুধ হিসেবে এই যৌগটি ওজন বাড়াতে সাহায্য করে। আন্দাজ করাই যায়, কেন ইনস্ট্যান্ট নুডলস দীর্ঘদিন খেলে ওজন বাড়ে।

সূত্র: বোল্ডস্কাই

Download WordPress Themes
Download WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Free Download WordPress Themes
udemy paid course free download