এবার অভিনেত্রী নুসরাত ও তার স্বামীকে নিয়ে ট্রোল

কলকাতার একটি গয়না সংস্থার বিজ্ঞাপন নিয়ে গত দুদিন ধরেই সরগরম সোশ্যাল মিডিয়া। খুব সাধারণভাবে অতি গুরুত্বপূর্ণ কথা দেখিয়ে ফেলেছে ওই গয়না সংস্থাটি। বিজ্ঞাপনটিতে দেখা যায়, হিন্দু মেয়ে মুসলিম ঘরের বউ হয়েও ‘সাধ’ খাচ্ছেন পরম আদরে। কিন্তু এই দৃশ্য মেনে নিতে পারছেন না নেটিজেনদের একাংশ। ফলে বিজ্ঞাপনটি নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক।

কলকাতার একটি গয়না সংস্থার বিজ্ঞাপন নিয়ে গত দুদিন ধরেই সরগরম সোশ্যাল মিডিয়া।

খুব সাধারণভাবে অতি গুরুত্বপূর্ণ কথা দেখিয়ে ফেলেছে ওই গয়না সংস্থাটি।

বিজ্ঞাপনটিতে দেখা যায়, হিন্দু মেয়ে মুসলিম ঘরের বউ হয়েও ‘সাধ’ খাচ্ছেন পরম আদরে।

কিন্তু এই দৃশ্য মেনে নিতে পারছেন না নেটিজেনদের একাংশ। ফলে বিজ্ঞাপনটি নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক।

এই বিতর্ক আরো বাড়িয়ে এর মধ্যে এক নেটিজেন টেনে আনেন কলকাতার জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও বসিরহাটের সাংসদ নুসরাত জাহান এবং তার স্বামী নিখিল জৈনের বিয়ের প্রসঙ্গ।

হিন্দু ধর্মাবলম্বী নিখিলকে বিয়ে করেছেন এই মুসলিম নায়িকা। তাই ওই নেটিজেনের বাঁকা উক্তি, ‘বিজ্ঞাপনে অন্যদের মডেল করার কী দরকার ছিল, যেখানে ‘রোল মডেল’ নিখিল-নুসরাত রয়েছেন।’

হিন্দি ভাষায় সরাসরি ওই নেটিজেন আঙুল রেখেছেন সাংসদ-অভিনেত্রী এবং তার ব্যবসায়ী স্বামীর এই স্পর্শকাতর জায়গায়।

নিখিল হার পরিয়ে দিচ্ছেন নুসরাতকে- এই ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘বিজ্ঞাপন প্রস্তুতকারীরা বড় ভুল করে ফেলেছেন।

এখানে নিখিল জৈন এবং নুসরাত জাহানকে দেখানো উচিত ছিল। আজ না হয় কাল, নুসরাতও তো গর্ভধারণ করবেন।’

প্রসঙ্গত, নিখিলকে বিয়ে করার পর থেকেই রোষের মুখে নুসরাত জাহান।

সিঁদুর, চুড়া, মঙ্গলসূত্র, শাড়ি পরে সংসদ ভবনে যেতেই নিন্দা ও সমালোচনার ঝড় ওঠে তাকে নিয়ে।

যদিও সাংসদ-অভিনেত্রী কোনো দিনই এসবে কান দেননি।

উল্টো তিনি উপস্থিত থেকেছেন রথযাত্রায়। সোশ্যাল মিডিয়ায় শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সমস্ত হিন্দু উৎসবে।

Download Premium WordPress Themes Free
Download Best WordPress Themes Free Download
Download WordPress Themes Free
Premium WordPress Themes Download
free download udemy paid course