এশিয়ার উদ্ভাবনী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান সর্বনিম্নে। আর শীর্ষে রয়েছে সিঙ্গাপুর।

এশিয়ার উদ্ভাবনী দেশের তালিকায় সর্বনিম্নে বাংলাদেশ

বৈশ্বিক উদ্ভাবনী সূচক-২০১৮ বিশ্লেষণ করে এশিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক (এএনএন) এ তথ্য জানিয়েছে।

এশিয়ার উদ্ভাবনী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান সর্বনিম্নে। আর শীর্ষে রয়েছে সিঙ্গাপুর। বেশিরভাগ সূচকে সর্বোচ্চ সফলতা অর্জন করে সিঙ্গাপুর এই অঞ্চলের নেতৃত্ব দিচ্ছে। দেশটি গত বছরের তুলনায় বৈশ্বিক তালিকার দুই ধাপ ওপরে উঠে এসেছে। বৈশ্বিক উদ্ভাবনী সূচক-২০১৮ বিশ্লেষণ করে এশিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক (এএনএন) এ তথ্য জানিয়েছে।

এএনএনের প্রতিবেদন বলা হয়েছে, মিয়ানমার ও পাকিস্তানের মতোই বাংলাদেশও ২০১৮ ও ২০১৯ সালে উদ্ভাবনের সূচকে ৫ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জনের সম্ভাবনা রয়েছে। অপরদিকে সিঙ্গাপুর, দক্ষিণ কোরিয়া এবং জাপান এশিয়ার সেরা উদ্ভাবনী দেশ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছে। উদ্ভাবনের দিক থেকে বিশ্বে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া।

দক্ষিণ কোরিয়া উচ্চআয়ের দেশগুলোর মধ্যে থেকে উদ্ভাবনে অধিক বিনিয়োগ করে এশিয়ায় দ্বিতীয় অবস্থান ধরে রেখেছে। দেশটির শুধুমাত্র বিনিয়োগই বৃদ্ধি করেনি, বৈজ্ঞানিক প্রকাশনা ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর গবেষণার মানেরও উল্লেখযোগ্য উন্নতি ঘটিয়েছে। এরপরেই এশিয়ার তৃতীয় স্থানে রয়েছে জাপান।

বাংলাদেশ, কাজাখস্তান, শ্রীলঙ্কা, নেপাল, পাকিস্তানসহ তালিকায় নিচের দিকে থাকা দেশগুলো ভবিষ্যতে উত্তরোত্তর উদ্ভাবনের মাধ্যমে উপকৃত হবে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

পরবর্তী এক দশকে জ্বালানিক্ষেত্রে উদ্ভাবন, উৎপাদন, সংরক্ষণ, বিতরণ এবং ব্যবহারের মতো ক্ষেত্রগুলো, যেখানে সফলতা অর্জনের সম্ভাবনা রয়েছে তা বিশ্লেষণ করা হয়েছে। এছাড়া কীভাবে তৃণমূল পর্যায় থেকে উদ্ভাবনের সূচনা হয় ও পর্যায়ক্রমে তার উন্নয়ন ঘটে তার বিস্তারিত তথ্য দেয়া হয়েছে প্রতিবেদনে।

Download Premium WordPress Themes Free
Premium WordPress Themes Download
Download WordPress Themes Free
Download Nulled WordPress Themes
online free course