কন্যার টিউশন ফি দিতে ব্যর্থ, আগুনে আত্মাহুতি পিতার

অস্বচ্ছল হওয়ার কারণে কন্যার টিউশন ফি দিতে না পেরে আগুনে আত্মাহুতি দিয়েছেন লেবাননের এক পিতা। দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় একটি স্কুলের খেলার মাঠে নিজের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেন তিনি। হতভাগ্য ওই পিতার নাম জর্জ জুরাইক। তিনি দুই সন্তানের জনক।স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে শনিবার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে মিডল ইস্ট মনিটর।

অস্বচ্ছল হওয়ার কারণে কন্যার টিউশন ফি দিতে না পেরে আগুনে আত্মাহুতি দিয়েছেন লেবাননের এক পিতা। দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় একটি স্কুলের খেলার মাঠে নিজের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেন তিনি। হতভাগ্য ওই পিতার নাম জর্জ জুরাইক। তিনি দুই সন্তানের জনক।স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে শনিবার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে মিডল ইস্ট মনিটর।

প্রতিবেদনে বলা হয়, অস্বচ্ছল ওই পিতা তার মেয়েকে অন্য স্কুলে নিয়ে ভর্তি করাতে চেয়েছিলেন। কিন্তু আগের স্কুলের টিউশন ফি বকেয়া থাকায় কর্তৃপক্ষ তাকে অন্য স্কুলে ভর্তির জন্য প্রয়োজনীয় সুপারিশ করতে অপারগতা প্রকাশ করে।

এ ঘটনায় নিজের গায়ে আগুন লাগিয়ে দেওয়া ওই ছাত্রীর বাবাকে হাসপাতালে নেওয়া হলেও ততক্ষণে বেশ খানিকটা দগ্ধ হয়ে গেছেন তিনি। ফলে শেষ পর্যন্ত তাকে আর বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

এদিকে, জর্জ জুরাইক-এর আত্মাহুতির ঘটনায় স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে উসকানির অভিযোগ এনেছেন তার ভাই। সংবাদমাধ্যম লেবাননস ভয়েসকে তিনি বলেন, স্কুলের প্রধান শিক্ষক তার ভাইকে টেলিফোনে উসকানি দিয়েছেন।

প্রধান শিক্ষক জর্জ জুরাইককে বলেছেন, তার স্কুলের বেতন বকেয়া রেখে মেয়েকে অন্য কোথাও ভর্তির সুপারিশ অনুমোদন করা হবে না।

জর্জ জুরাইকের ভাই বলেন, আমার ভাই প্রধান শিক্ষককে বলেছিলেন যে, তিনি বকেয়া পরিশোধে একটি অঙ্গীকারপত্রে স্বাক্ষর করবেন। কিন্তু তার এ প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

Free Download WordPress Themes
Download Nulled WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Download Premium WordPress Themes Free
online free course