জেনে নিন কোন তেল মুখে মাখলে বয়স বাড়বে না!

চেহারায় বয়সের ছাপ পড়া নিয়ে উদ্বিগ্ন? এমনটা হওয়াই স্বাভাবিক। কারণ বয়সের সঙ্গে সঙ্গে আমাদের চেহারায় তার ছাপ পড়ে। অনেক সময় খাদ্যাভ্যাস, দূষিত আবহাওয়া, ধুলোবালি ইত্যাদির কারণে চেহারায় দ্রুতই বয়সের ছাপ পড়ে। অ্যান্টি-এজিং ক্রিম থেকে শুরু করে কেমিক্যাল ট্রিটমেন্ট কত কী চেষ্টা চলতেই থাকে। কিন্তু জানেন কি, এত কষ্ট না করেও বয়সের ছাপ এড়িয়ে চলা সম্ভব। আর সেজন্য দরকার খুবই পরিচিত একটি উপাদান। সেটি হলো নারিকেল তেল।

চেহারায় বয়সের ছাপ পড়া নিয়ে উদ্বিগ্ন? এমনটা হওয়াই স্বাভাবিক। কারণ বয়সের সঙ্গে সঙ্গে আমাদের চেহারায় তার ছাপ পড়ে। অনেক সময় খাদ্যাভ্যাস, দূষিত আবহাওয়া, ধুলোবালি ইত্যাদির কারণে চেহারায় দ্রুতই বয়সের ছাপ পড়ে। অ্যান্টি-এজিং ক্রিম থেকে শুরু করে কেমিক্যাল ট্রিটমেন্ট কত কী চেষ্টা চলতেই থাকে। কিন্তু জানেন কি, এত কষ্ট না করেও বয়সের ছাপ এড়িয়ে চলা সম্ভব। আর সেজন্য দরকার খুবই পরিচিত একটি উপাদান। সেটি হলো নারিকেল তেল।

চিরপরিচিত নারিকেল তেলেই রয়েছে বলিরেখা আর কালো দাগছোপ দূরে রাখার অব্যর্থ গুণ! বিশ্বাস না হলে নিচের উপায়গুলো থেকে যেকোনো একটা মেনে চলার চেষ্টা করুন-

নারিকেল তেল
প্রথমে মুখ পরিষ্কার করে ঠান্ডা পানিতে ধুয়ে নিন। তোয়ালে দিয়ে চেপে পানিটা মুছে নিতে হবে। এরপর আঙুলের ডগায় সামান্য ভার্জিন নারিকেল তেল দিয়ে গোটা মুখে আর গলায় বৃত্তাকারে মাসাজ করুন। সারারাত তেলটা মুখে বসতে দিতে হবে। প্রতিরাতে শুতে যাওয়ার আগে এভাবে মুখে তেল মাসাজ করলে আপনার মুখে বয়সের ছাপ পড়বে না।

আপেল সাইডার ভিনিগার ও নারিকেল তেল
১ টেবিল চামচ আপেল সাইডার ভিনিগার, ১ টেবিল চামচ পানি আর কয়েক ফোঁটা ভার্জিন নারিকেল তেল একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। এবার তুলোর সাহায্যে সারা মুখে লাগিয়ে স্বাভাবিকভাবে শুকোতে দিন। এবার আরও খানিকটা নারিকেল তেল সারা মুখে মাসাজ করে সারা রাত রেখে দিন। আপেল সাইডার ভিনিগার ত্বকে অ্যাস্ট্রিনজেন্টের কাজ করে, আর নারিকেল তেল ত্বকে প্রয়োজনীয় আর্দ্রতা জুগিয়ে দূরে রাখে বয়সের চিহ্ন।

ভিটামিন ই ও নারিকেল তেল
একটা ভিটামিন ই ক্যাপসুল কেটে ভিতরের তরল জিনিসটা বের করে নিন। এবার তাতে কয়েক ফোঁটা অর্গানিক নারিকেল তেল দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন। পরিষ্কার মুখে এই তেলের মিশ্রণটা লাগিয়ে কয়েক মিনিট মাসাজ করুন। প্রতি রাতে করলে ত্বকের চোখে পড়ার মতো উন্নতি হবে। নিষ্প্রভ ও বয়সের ছাপ পড়া ত্বকে এই তেলের মিশ্রণটি বিশেষভাবে কার্যকর।

লেবু ও নারিকেল তেল
১ চা চামচ কাঁচা দুধে কয়েক ফোঁটা পাতিলেবুর রস মিশিয়ে ভালোভাবে নাড়ুন। দুধে কিছুক্ষণের মধ্যেই ছানা কেটে যাবে। এবার ওই ছানায় ১ টেবিল চামচ ভার্জিন নারিকেল তেল যোগ করে আরেকবার ভালো করে মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি মুখে লাগিয়ে দুই-তিন মিনিট মাসাজ করুন। তারপর ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলতে হবে। লেবুর রস ত্বক পরিষ্কার করে, রোমছিদ্রগুলোও সঙ্কুচিত করে দেয়। লেবুর ভিটামিন সি ত্বকের টানটানভাব বাড়িয়ে তুলে বলিরেখার উপস্থিতি চোখে পড়ার মতো কমিয়ে দেয়। পাশাপাশি ছানা কাটা দুধ আর নারিকেল তেল ত্বকে আর্দ্রতা জোগায়।

হলুদ গুঁড়া ও নারিকেল তেল
১ টেবিলচামচ ভার্জিন নারিকেল তেলে এক চিমটি হলুদ গুঁড়া দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন। বলিরেখার উপর এই মিশ্রণটি লাগিয়ে ১৫-২০ মিনিট রাখতে হবে। তারপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। হলুদের অ্যান্টি অক্সিডান্ট ফ্রি র‍্যাডিকালের ক্ষতি থেকে ত্বককে সুরক্ষিত রাখে এবং কোলাজেন উৎপাদন বাড়িয়ে ত্বক টানটান রাখে আর নারিকেল তেল ত্বকে আর্দ্রতা আর কোমলতা জোগায়। ফলে আপনি পেয়ে যান তারুণ্যে ভরপুর টানটান কোমল ত্বক।

Free Download WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Premium WordPress Themes Download
Download Nulled WordPress Themes
free download udemy course