জেলে সবজি চাষ করছেন সেই রাম-রহিম

জেলখানায় বসে সবজি চাষ করেন বহুল আলোচিত সিরসা ডেরার প্রধান গুরমিত রাম রহিম সিং। দুই বছর ধরে তিনি জেলে রয়েছেন। এ দুই বছলর তিনি সবজি চাষ করে ১৮ হাজার রুপি আয় করেছেন। এ রুপি আয় করতে তার শরীরের ওজনও ১৫ কেজি কমেছে। ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় দণ্ডিত হয়ে ‘বাবা’ হিসেবে পরিচিত সাবেক এই ধর্মগুরু ২০১৭ সাল থেকে ভারতের সুনারিয়া জেলে বন্দি রয়েছেন।

জেলখানায় বসে সবজি চাষ করেন বহুল আলোচিত সিরসা ডেরার প্রধান গুরমিত রাম রহিম সিং। দুই বছর ধরে তিনি জেলে রয়েছেন। এ দুই বছলর তিনি সবজি চাষ করে ১৮ হাজার রুপি আয় করেছেন। এ রুপি আয় করতে তার শরীরের ওজনও ১৫ কেজি কমেছে। ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় দণ্ডিত হয়ে ‘বাবা’ হিসেবে পরিচিত সাবেক এই ধর্মগুরু ২০১৭ সাল থেকে ভারতের সুনারিয়া জেলে বন্দি রয়েছেন।

৫০তম জন্মদিন পালনের ১০ দিন পরই ডেরা সদরদফতর থেকে গ্রেফতার করা হয় গুরমিতকে। ২০১৭ সালের ২৫ আগস্ট তাকে জেলে ঢোকানো হয়। পাঁচকুলার সিবিআই আদালত তাকে ২০ বছরের জেল দেন।

গ্রেফতারের পর তাকে সুনারিয়া জেলে রাখা হয়। এরপর থেকে জেলখানাটি উচ্চ নিরাপত্তা জোনে পরিণত হয়। জেলখানাটিতে গড়ে তোলা হয়েছে বহুস্তর বিশিষ্ট নিরাপত্তা। এতে মোতায়েন করা হয়েছে আধা-সামরিক বাহিনীর সদস্য। সার্বক্ষণিক সেখানে প্রহরা চলছে। নিয়মিত কয়েদিদের কয়েদখানা থেকে কিছুটা দূরে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন একটি বিশেষ জেলে রাখা হয়েছে গুরমিতকে। সেখানে তার সঙ্গে রয়েছে মাত্র তিনজন অভিযুক্ত।

গুরমিত রাম-রহিম সিংকে জেলে ঢোকানোর পর তার পালিতকন্যা হানিপ্রিত আর কখনও তাকে দেখতে যাননি। তবে তার পরিবারের সদস্যরা সপ্তাহে একবার দেখা করতে যান। তাদের কাছে গুরমিত তার ময়লা কাপড় দিয়ে ধোয়া কাপড় গ্রহণ করেন। সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া।

Download WordPress Themes Free
Download Nulled WordPress Themes
Download Nulled WordPress Themes
Download WordPress Themes
download udemy paid course for free