‘দুই হাজার জুয়ার সাইট বন্ধ হয়েছে’

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, আমরা এ পর্যন্ত ২ হাজার জুয়ার সাইট বন্ধ করেছি। একই সঙ্গে বন্ধ করা হয়েছে ২৪ হাজার পর্নো সাইট।

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, আমরা এ পর্যন্ত ২ হাজার জুয়ার সাইট বন্ধ করেছি। একই সঙ্গে বন্ধ করা হয়েছে ২৪ হাজার পর্নো সাইট।

শুক্রবার (২০ সেপ্টেম্বর) ঢাকায় বাংলাদেশ শিশু একাডেমিতে খেলাঘর জাতীয় সম্মেলন ২০১৯-এর উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন তিনি। ইমেরিটাস অধ্যাপক প্রফেসর ড. আনিসুজ্জামান ওই সম্মেলনের উদ্বোধন করেন।

তিনি বলেন, আগামী দিনগুলো ডিজিটাল শিল্প বিপ্লবের দিন। শিশু-কিশোরদের আগামী দিনের ডিজিটাল বিপ্লবের উপযোগী সৈনিক হিসেবে গড়ে তুলতে শিক্ষক অভিভাবসহ শিশু কিশোর সংগঠনগুলো আরো সচেষ্ট হতে হবে।

তিনি আরো বলেন, ডিজিটাল বিপ্লবের শক্তিশালী হাতিয়ার হচ্ছে মেধা। বাংলাদেশের ছেলেমেয়েরা খুবই মেধাবী। তারা এক মাসের প্রশিক্ষণ নিয়ে এখন রোবট বানাতে পারে বলে তিনি উল্লেখ করেন। খেলাঘর জাতীয় কমিটির সভাপতিমণ্ডলীর চেয়ারম্যান অধ্যাপক পান্না কায়সারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. আখতারুজ্জামান এবং বরগুনার ৭ বছরের শিশু মনিরা বক্তৃতা করেন।

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী প্রাচীন প্রতিষ্ঠান খেলাঘরের স্বাধীনতার আগে অসাম্প্রদায়িকতাবিরোধী ভূমিকাসহ নানা ক্ষেত্রে খেলাঘরের ভূমিকা তুলে ধরে বলেন, খেলাঘরকে আবারো জাগ্রত হতে হবে। বঙ্গবন্ধু যে জাতিসত্তার জন্ম দিয়েছেন তা টিকিয়ে রাখতে আগামী দিনগুলোতেও খেলাঘরকে কাজ করতে হবে।

মন্ত্রী ডিজিটাল শিল্প বিপ্লবের হাতিয়ার হিসেবে দেশের নতুন প্রজন্মকে অত্যন্ত মেধাবী উল্লেখ করে বলেন, দেশের শিশু-কিশোরদের ডিজিটাল শিল্প বিপ্লবের উপযোগী হিসেবে গড়ে তুলতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার প্রচলিত শিক্ষাকে ডিজিটাল রূপান্তর শুরু করেছে।

২০১৮ সাল থেকে আমরা শিশু-কিশোরদের জন্য কম্পিউটার প্রোগ্র্রামিং শুরু করেছি। আমাদের সন্তানরা এখন এক মাস প্রশিক্ষণ নিয়ে রোবট বানাতে পারে। ডিজিটাল ডিভাইসের মাধ্যমে দেশে অনেক প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে।

মন্ত্রী ছেলেমেয়েদের জন্য ডিজিটাল শিক্ষার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করে বলেন, ডিজিটাল শিল্প বিপ্লবের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হলে ডিজিটাল শিক্ষা অপরিহার্য। অনেক অভিভাবক মনে করেন, ছেলেমেয়েদের কম্পিউটার স্পর্শ করতে দেওয়াই উচিত না। এই ভ্রান্ত ধারণার বৃত্ত থেকে আমাদের বেরিয়ে আসতে হবে। কারণ সরকার ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর।

মোস্তাফা জব্বার বাংলাদেশের জাতীয় প্রবৃদ্ধি, শিক্ষার হার, নারী উন্নয়নসহ উন্নয়নের প্রতিটি সূচকে গত ১০ বছরের সফলতার চিত্র তুলে ধরে বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ আমাদের এগিয়ে যাওয়ার হাতিয়ার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশের ধারণা বিশ্বে এগিয়ে যাওয়ার দৃষ্টান্ত হিসেবে উঠে আসছে। বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মধ্য দিয়ে যে অশুভ শক্তি বাংলাদেশকে ধ্বংসের চেষ্টা করেছিল সেই অপশক্তির এখনো শেষ হয়ে যায়নি বলে উল্লেখ করেন তিনি।

Free Download WordPress Themes
Download Best WordPress Themes Free Download
Download Best WordPress Themes Free Download
Download WordPress Themes Free
udemy paid course free download