নতুন চুল গজাতে যেসব খাবার খাবেন

আমাদের মাথার প্রতিটি চুলের গড় আয়ু ১ হাজার একশত ১০ দিন। অর্থাৎ এই সময় পর পুরনো চুল মরে গিয়ে বা পড়ে গিয়ে নতুন চুল গজাবে। এটাই স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। বিশেষজ্ঞদের মতে, একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের প্রতিদিন গড়ে ৮০ থেকে ১০০ টি চুল পড়বে এবং সমপরিমাণ নতুন চুল গজাবে। কোনো কোনো চিকিৎসক বলেছেন, দৈনিক ১৫০টি চুল পড়াও স্বাভাবিক ঘটনার মধ্যেই পড়ে।

আমাদের মাথার প্রতিটি চুলের গড় আয়ু ১ হাজার একশত ১০ দিন। অর্থাৎ এই সময় পর পুরনো চুল মরে গিয়ে বা পড়ে গিয়ে নতুন চুল গজাবে।

এটাই স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। বিশেষজ্ঞদের মতে, একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের প্রতিদিন গড়ে ৮০ থেকে ১০০ টি চুল পড়বে এবং সমপরিমাণ নতুন চুল গজাবে। কোনো কোনো চিকিৎসক বলেছেন, দৈনিক ১৫০টি চুল পড়াও স্বাভাবিক ঘটনার মধ্যেই পড়ে।

চুল পড়ার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে যদি সমান সংখ্যক চুল না গজায় তাহলেই দেখা দেয় টাক বা পাতলা চুলের সমস্যা।

নতুন চুল গজানোর জন্য ৫ ধরনের খাদ্যাভ্যাসের কথা বলেছেন হেয়ার স্পেশালিস্টরা। আসুন তা জেনে নিই-

১. ঘন চুল পেতে চাইলে খাদ্য তালিকায় তৈলাক্ত মাছ রাখুন। এতে প্রচুর পরিমাণে ওমেগা-৩ এবং ওমেগা-৬ ফ্যাটি এসিড এবং ভিটামিন-ই থাকে।

এ উপাদানগুলো চুলের ঘনত্ব বাড়াতে জাদুর মত কাজ করে।

২. কেরোটিন নামক প্রোটিন চুলকে শক্তিশালী করে ও বড় হতে সাহায্য করে। যখন কেরোটিনাইজেশন প্রক্রিয়া ব্যাহত হয় তখন চুল গজায় ঠিক কিন্তু একটু বড় হলেই তা ভেঙে যায়।

এ সমস্যা থেকে বাঁচতে বেশি করে ভিটামিন ‘এ’ সমৃদ্ধ খাবার যেমন- মিষ্টি আলু, পালং শাক ইত্যাদি খেতে হবে।

৩. খাদ্যতালিকায় প্রোটিন ও বায়োটিন সমৃদ্ধ খাবার রাখুন। আমিষ জাতীয় খাবার যেমন মাংস-ডিম ইত্যাদিতে বায়োটিন পাওয়া যায়।

বায়োটিন চুলের বৃদ্ধিতে সাহায্য করে।

৪. চুলের স্টেনডেন ধরে রাখার সহকারী কোলাজেন তৈরি করার জন্য ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ খাবার খান।

ভিটামিন সি ক্যান্সারসহ অনেক জটিল রোগের বিরুদ্ধে লড়াই করে।

৫. লম্বা, কালো, ঘন চুলের জন্য বাদাম, বিচিজাতীয় ফল, সয়াবিন বীজ, ভিটামিন বি, ই এবং জিংক সমৃদ্ধ খাবার খাদ্য তালিকায় রাখুন।

Download Nulled WordPress Themes
Download WordPress Themes Free
Download Best WordPress Themes Free Download
Download Best WordPress Themes Free Download
udemy paid course free download