পন্টিংকে ছাড়িয়ে রুটের বিশ্বরেকর্ড

এই বিশ্বকাপে ব্যাট-বলে হচ্ছে একের পর এক রেকর্ড। তবে ফিল্ডিংয়ের ব্যাপারটি সবার আড়ালেই থেকে যাচ্ছে। সেই ফিল্ডিংয়েই আজ নতুন এক কীর্তি গড়লেন ইংল্যান্ডের জো রুট। ছাড়িয়ে গেলেন ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম সেরা ফিল্ডার অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক রিকি পন্টিংকে।

এই বিশ্বকাপে ব্যাট-বলে হচ্ছে একের পর এক রেকর্ড। তবে ফিল্ডিংয়ের ব্যাপারটি সবার আড়ালেই থেকে যাচ্ছে। সেই ফিল্ডিংয়েই আজ নতুন এক কীর্তি গড়লেন ইংল্যান্ডের জো রুট। ছাড়িয়ে গেলেন ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম সেরা ফিল্ডার অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক রিকি পন্টিংকে।

এতদিন বিশ্বকাপের এক আসরে সবচেয়ে বেশি ক্যাচ নেয়ার রেকর্ডটা ছিল অসি ক্রিকেটার পন্টিংয়ের দখলে। ২০০৩ বিশ্বকাপে ১১ ম্যাচ খেলে সবচেয়ে বেশি ১১টি ক্যাচ ধরেন তিনি।

চলতি বিশ্বকাপে এবার খেলতে নেমে প্রথম রাউন্ডেই এই রেকর্ড ছুঁয়ে ফেলেন ইংল্যান্ডের রুট। তাই বৃহস্পতিবার সেমিফাইনালে পন্টিংকে ছাড়িয়ে শীর্ষে যাওয়ার জন্য তার দরকার ছিল মাত্র একটি ক্যাচ।

অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসের ৩৮তম ওভারে আদিল রশিদের বলে প্যাট কামিন্সের ক্যাচ তালুবন্দী করেই পন্টিংকে টপকে শীর্ষে উঠে যান রুট। এই রেকর্ড ভাঙার জন্য পন্টিংয়ের থেকে একটি ম্যাচ কম খেলেছেন তিনি।

ক্যাচের এই রেকর্ডে তৃতীয় অবস্থানে আছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ফাফ ডু প্লেসিস। রুটের মতো চলতি বিশ্বকাপেই ৯ ম্যাচে ১০টি ক্যাচ ধরেছেন তিনি। তালিকার চতুর্থ স্থানে আছেন আরেক প্রোটিয়া ক্রিকেটার রাইলি রুশো। ২০১৫ বিশ্বকাপে ৬ ম্যাচে তিনি ধরেন ৯টি ক্যাচ।

ফিল্ডার হিসেবে পন্টিংয়ের রেকর্ডটি ভেঙে গেলেও এই বিভাগে আরেকটি বিরল কীর্তি ঠিকই রয়ে গেছে সাবেক অজি অধিনায়কের। বিশ্বকাপের সব আসর মিলিয়ে সবার চেয়ে বেশি মোট ২৮টি ক্যাচ ধরেছেন এই কিংবদন্তি ক্রিকেটার। যে রেকর্ড এখনও ভাঙতে পারেননি কেউ।

Premium WordPress Themes Download
Download WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Download WordPress Themes
free online course