পরিশ্রম সার্থক দেব, মিমি, নুসরাতের

এবারের বিধানসভা নির্বাচনেও কঠোর পরিশ্রম করেছেন দেব, মিমি, নুসরাত। প্রার্থী না হলেও দলীয় প্রার্থীর জন্য চষে বেড়িয়েছেন ওপার বাংলার আনাচে-কানাচে। সভা সমাবেশ থেকে শুরু করে দরজায় গিয়েও ভোট চেয়েছেন তারা।

দেব, মিমি, নুসরাত। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের তিন সৈনিক। শুধু সৈনিকই না, বিশ্বস্ত সৈনিক। গত লোকসভা নির্বাচনে সাংসদ নির্বাচিত হয়েছেন তিনজন। তারপর তৃণমূল কংগ্রেসে হয়ে সমানে কাজ করছেন তারা।

এবারের বিধানসভা নির্বাচনেও কঠোর পরিশ্রম করেছেন দেব, মিমি, নুসরাত। প্রার্থী না হলেও দলীয় প্রার্থীর জন্য চষে বেড়িয়েছেন ওপার বাংলার আনাচে-কানাচে। সভা সমাবেশ থেকে শুরু করে দরজায় গিয়েও ভোট চেয়েছেন তারা।

রোববার (২ মে) ফলাফল ঘোষণার আগেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে অভিনন্দন জানিয়ে টুইট করেছেন যাদবপুরের সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। তৃণমূলের ২০০ আসন পার হওয়া মাত্রই টুইটে মিমি লিখেছেন, ‘অপরাজিত’। সঙ্গে যোগ করেছেন তৃণমূল প্রধানের ছবি।

আর নুসরাত লিখেছেন, ‘খেলা হয়েছে, জেতা হচ্ছে’। অন্যদিকে বাড়িতে বসে কেক কেটে জয় উদযাপন করেছেন দেব। টুইট করে দেব লিখেছেন, ‘শক্তি, সমর্থন এবং আশ্বাস রাখার জন্য ধন্যবাদ।’

জানা গেছে, বিধানসভা নির্বাচনের প্রচার পরিকল্পনার বড় দায়িত্ব ছিল দেব, মিমি, নুসরাতের ওপর। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশও ছিল তাদের প্রতি। তাইতো দ্রুত লাইট-ক্যামেরার সামনের কাজ শেষ করে ভোটের মাঠে নেমে পড়েন তারা। আর তৃণমূলের এ বিরাট জয়ে স্বভাবতই উচ্ছ্বসিত এ তিন তারকাপ্রার্থী।

Download WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
Download WordPress Themes
Download Nulled WordPress Themes
download udemy paid course for free