পাঁচ ধাপে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা

বিশ্বে চলমান মহামারি থেকে শিক্ষার্থীদের সংক্রমণমুক্ত রাখতে গত মার্চ থেকেই বন্ধ রয়েছে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। একই কারণে দেশের প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী, জেএসসি-জেডিসি ও উচ্চ মাধ্যমিক এবং সমমানের পরীক্ষা ইতোমধ্যেই বাতিল করা হয়েছে। এই পরিস্থিতির মাঝে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা অনলাইনে নেওয়ার চিন্তা-ভাবনাও চলছে। তবে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত এখনো হয়নি।

বিশ্বে চলমান মহামারি থেকে শিক্ষার্থীদের সংক্রমণমুক্ত রাখতে গত মার্চ থেকেই বন্ধ রয়েছে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

একই কারণে দেশের প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী, জেএসসি-জেডিসি ও উচ্চ মাধ্যমিক এবং সমমানের পরীক্ষা ইতোমধ্যেই বাতিল করা হয়েছে।

এই পরিস্থিতির মাঝে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা অনলাইনে নেওয়ার চিন্তা-ভাবনাও চলছে। তবে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত এখনো হয়নি।

এ দিকে, চলতি বছর এইচএসসি পরীক্ষায় অটোপাস করা শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি করার জন্য তিন ক্যাটাগরিতে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

পাশাপাশি এবার ৩৯টি বিশ্ববিদ্যালয়ে অনলাইনে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে।

আর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত কলেজগুলোয় আগের নিয়মেই এসএসসি ও এইচএসসির প্রাপ্ত জিপিএর ভিত্তিতেই ভর্তি করা হবে।

অন্যদিকে, এ বছর এইচএসসি পরীক্ষার্থী ছিল প্রায় ১৩ লাখ ৬৫ হাজার। তাদের এই পরীক্ষা না হওয়ায় সবাই উত্তীর্ণ হচ্ছেন।

বর্তমানে দেশে ৪৬টি সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স প্রথম বর্ষে আসন সংখ্যা প্রায় ৬০ হাজার।

আর বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে আসন সংখ্যা অন্তত এক লাখ।

এছাড়া সরকারি কলেজগুলোয় আসন সংখ্যা ১২ লাখের মতো। ফলে এবার সব শিক্ষার্থীই উচ্চশিক্ষায় ভর্তির সুযোগ পাবেন।

জানা গেছে, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট), ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় তাদের নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় এবং পরিচালনায় স্বতন্ত্রভাবে ভর্তি পরীক্ষা নেবে।

ইতোমধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা অনলাইনে নেওয়ার নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যরা।

সূত্র জানায়, মোবাইল অ্যাপসের মাধ্যমে অনলাইনে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন শিক্ষার্থীরা।

এ জন্য একটি বিশেষ সফটওয়্যারও তৈরি করা হচ্ছে। এবার সমন্বিত পদ্ধতিতে কৃষি, প্রকৌশলী ও সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছভাবে মোট পাঁচ ধাপে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে।

সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়ে বিজ্ঞান, বাণিজ্য ও মানবিক বিভাগের জন্য তিনটি পরীক্ষা হবে।

এ ব্যাপারে গত শনিবার (১৭ অক্টোবর) চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট) ভিসি অধ্যাপক ড. রফিকুল আলমের সভাপতিত্বে উপাচার্যদের ভার্চুয়াল সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় ৪৬টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অংশ নেন।

এ সময় করোনার কারণে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা বাতিল হলেও বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এইচএসসি পরীক্ষা বাতিল হওয়ায় ভর্তি পরীক্ষা এমনভাবে হওয়া উচিত যাতে শিক্ষার্থীদের মেধা যাচাইয়ের সুযোগ থাকে।

তা নাহলে উচ্চতর শিক্ষায় কম মেধাবীদের ভিড়ে মেধাবীরা হারিয়ে যেতে পারে বলে তারা আশঙ্কা করছেন।

Free Download WordPress Themes
Download Premium WordPress Themes Free
Download WordPress Themes Free
Free Download WordPress Themes
free download udemy paid course