পুকুরে বিরল প্রজাতির মাছ নিয়ে চাঞ্চল্য

আড়াইশ' গ্রাম ওজনের মাছটি শনিবার বিকালে উপজেলার সদর ইউনিয়নের পূজাখোলার দক্ষিণ পাশের সরদার বাড়ির একটি পুকুরে পাওয়া যায়। মাছটি দেখতে কয়েকশ' উৎসুক জনতা ওই এলাকায় ভিড় জমান।

পটুয়াখালীর দশমিনায় এক যুবকের জালে পাওয়া বিরল প্রজাতির একটি মাছ নিয়ে চাঞ্চল্যকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। মাছটি সাকার ফিশ নামে পরিচিত বলে জানা গেছে।

আড়াইশ’ গ্রাম ওজনের মাছটি শনিবার বিকালে উপজেলার সদর ইউনিয়নের পূজাখোলার দক্ষিণ পাশের সরদার বাড়ির একটি পুকুরে পাওয়া যায়। মাছটি দেখতে কয়েকশ’ উৎসুক জনতা ওই এলাকায় ভিড় জমান।

মাছটি পাওয়া রায়হান সরদার জানান, ঘটনার দিন দুপুরে তিনি তার এলাকার পরিচিত একজনের পুকুরে মাছ ধরতে গিয়েছিলেন। সেখানে মাছ না পাওয়ায় তার বাড়ির সামনের একটি পুকুরে মাছের বিচরণ দেখতে পান। পরে তিনি বড় কোনো মাছ পাওয়ার আশায় বাড়ির সামনের পুকুরে জাল ফেলেন।

জাল ফেলার পর পুকুরে থাকা একটি গাছের সঙ্গে জাল আটকে গেলে রায়হান জাল ছাড়াতে গিয়ে জালের মধ্যে কাটাযুক্ত বিরল প্রজাতির ওই মাছটি পান। পরে স্থানীয়দের মাছটি দেখালে কেউ মাছটির নাম বলতে পারেননি।

এদিকে মাছটি পাওয়ার পর এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয় বলে জানান তিনি। কয়েকশ’ লোক মাছটি দেখতে তার বাড়িতে ভিড় জমান।

রায়হান আরও জানান, সন্ধ্যায় তিনি মাছটি একটি বালতিতে থাকা পুঁটি মাছের সঙ্গে রাখলে বিরল প্রজাতির ওই মাছটি পুঁটি মাছগুলোকে খেয়ে ফেলে। এমন পরিস্থিতি দেখে রায়হান বাড়ির পাশের অন্য একটি পুকুরে ওই দিনই মাছটি ছেড়ে দেন।

রায়হানের দাবি, মাছটির ছবি তুলে ফেসবুকে দেয়ার পর জাহিদ ইসলাম নামে তাকে একজন জানান মাছটির নাম সাকার ফিশ। অচেনা হওয়ায় অনেকে তাকে মাছটি না খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বলে তিনি জানান।

উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মাহবুব আলম তালুকদার জানান, এ ধরনের মাছ সম্পর্কে তার কোনো ধারণা নেই। এ নামের সঙ্গেও তিনি পরিচিত নন।

Download WordPress Themes
Download Premium WordPress Themes Free
Free Download WordPress Themes
Premium WordPress Themes Download
download udemy paid course for free