আটক Archives - 24/7 Latest bangla news | Latest world news | Sports news photo video live

arrest-bnp-20181227160224.jpg

চট্টগ্রাম নগরের খুলশী থানার টাইগারপাসের একটি পাহাড়ি এলাকা থেকে ১৮টি পেট্রলবোমা উদ্ধারের দাবি করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। এ সময় নগর বিএনপির থানা পর্যায়ের দুই নেতাকে আটক করা হয়। বৃহস্পতিবার (২৭ ডিসেম্বর) ভোরে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

আটকরা হলেন- খুলশী থানা বিএনপির সহ-সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন ও সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মো. জাবেদ।

নগর পুলিশের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বৃহস্পতিবার ভোরে খুলশী থানার টাইগারপাস এলাকার একটি পাহাড় থেকে ১৮টি পেট্রলবোমাসহ দুই ব্যক্তিকে আটক করা হয়। তারা জাতীয় সংসদ নির্বাচন বানচাল ও আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি ঘোলাটে করে জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টির জন্য পাহাড়ে জড়ো হয়েছিল। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।’

arrest-20181224155809.jpg

রাজধানীর শাহজাহানপুরে বিএনপির প্রার্থী মির্জা আব্বাসের পক্ষে টাকা বিলির সময় দু’জনকে আটক করেছে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। সোমবার বেলা সোয়া ২টার দিকে শাহজাহানপুর আল বারাকা হাসপাতালের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয়।

যাদের আটক করা হয়েছে তারা হলেন- মহিত ও শহীদ। তাদের কাছে থেকে চার লাখ টাকাও জব্দ করেছে পুলিশ।

ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে ডিবির মতিঝিল জোনের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার আতিক বলেন, আমাদের কাছে বিদেশি টাকায় ভোট কেনা-বেচার তথ্য ছিল। ওই তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শহীদ পুলিশকে জানিয়েছে, মির্জা আব্বাসের বড় ভাই মির্জা খোকন তার বন্ধু। খোকন মালয়েশিয়া থেকে টাকা পাঠিয়েছেন ভোট কেনার জন্য।

ssva.jpg

আশুলিয়ায় নির্বাচনী প্রচারনায় এক আওয়ামীলীগ নেতার মাথা ফাটিয়ে দেওয়ার অভিযোগে পাথালিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের আহ্বায়ক সুমন মন্ডল পন্ডিতকে আটক করেছে পুলিশ ।

শুক্রবার (২১ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় আশুলিয়ার নয়ারহাট এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ ।

এর আগে শুক্রবার দুপুরে ঘোষবাগ এলাকায় সাভারের নির্বাচনী প্রচারনায় ইয়ারপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সদস্য মোশারফ হোসেন মুসার মাথা ফাটিয়ে দেয় থানা যুবলীগের আহ্বায়ক কবির সরকারের লোকজন ।

স্থানীয়রা ও পুলিশ জানায়, শুক্রবার দুপুরে আশুলিয়ার সরকার মার্কেট এলাকায় নির্বাচনী প্রচরনা চালাচ্ছিলেন আওয়ামীলীগ প্রার্থী ও বর্তমান সাংসদ ডা. এনামুর রহমান। এসময় তার সাথে আশুলিয়ার যুবলীগ ও আওয়ামীলীগের বিভিন্ন নেতাকর্মীরা অংশ গ্রহন করেন। দুপুর ১২টার দিকে সরকার মার্কেট এলাকায় আশুলিয়া থানা যুবলীগের আহ্বায়ক কবির সরকারের লোকজনের সাথে ইয়ারপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সদস্য মোশারফ হোসেন মুসার লোকজনের বাকবিতন্ডতা হয়। পরে সেখান থেকে দুইটার দিকে প্রচারনা শেষে ঘোষবাগের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় নেতাকর্মীরা। ঘোষবাগ এলাকায় পৌছিয়ে গাড়ি থেকে নামার সাথে সাথেই আগে থেকে উৎপেতে থাকা যুবলীগ নেতা কবির সরকারের লোকজন তার উপর হামলা চালায়। এসময় আওয়ামীলীগ নেতার মাথা ফাঠিয়ে দেয় তারা। এ ঘটনায় আনোয়ার নামের আরো এক ব্যক্তি আহত হয়। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে উত্তরার একটি হাসপাতালে ভর্তি কর হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে আশুলিয়া থানার (ওসি তদন্ত) জাবেদ মাসুদ বলেন, এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত লিখিত অভিযোগ না পেলেও মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে সুমন পন্ডিত নামের একজনকে আটক করা হয়েছে । এছাড়াও ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারের জন্য অভিযান চলছে বলেও তিনি জানান।

তবে এ বিষয়ে সাংসদ সদস্য ডা. এনামুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, হামলা নয় তাদের মধ্যে একটু হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। এ বিষয়ে তিনি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করবেন বলেও জানান।

আওয়ামীলীগ নেতা মোশারফ হোসেন মুসার ভাই আমজাদ দেওয়ান অভিযোগ করে বলেন, তার ভাইয়ের সাথে কবির সরকারের লোকজনের আগে থেকে বিরোধ চলে আসছিল। এ কারনে পরিকল্পিতভাবে তার ভাইকে মেরে ফেলার জন্য হামলা চালায় বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

সাংসদের প্রচারনায় থাকা বাংলাদেশ যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক হাসান তুহিন বলেন, মোশারফ আশুলিয়া থানা যুবলীগের সাবেক কমিটির ইউনিয়ন সভাপতি ছিল। এছাড়াও একই ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের সদস্য মোশারফ। তারা প্রচারনার এক পর্যায়ে ঘোষবাগে গেলে পেছন থেকে মোশারফের উপর হামলা চালানো হয়। যুবলীগ নেতাক কবির সরকারের লোকজন এ হামলা চলিয়েছে। এছাড়াও সাংসদ ডা. এনামুর রহমান ঘটনাটির ব্যবস্থা নিবে বলে আস্বস্থ্য করেছেন বলে তিনি জানান।

এ বিষয়ে আশুলিয়া থানা যুবলীগের আহ্বায়ক কবির হোসেন সরকার অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, তার লোকজন এ হামলা চালায় নি। তার নামে মিথ্যে কথা বলা হয়েছে । ঢাকা জেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক জি এস মিজান বলেন, এ ধরনের কোন ঘটনার অভিযোগ পেলে সে যেই হোক তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও তিনি জানান।