সাকিব আল হাসান Archives - 24/7 Latest bangla news | Latest world news | Sports news photo video live

bplsakib.jpg

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ষষ্ঠ আসরে ইতিহাস গড়লেন ঢাকা ডাইনামাইটসের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। বিপিএলে প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে ১০০ উইকেট শিকারের মাইলফলক স্পর্শ করেছেন বিশ্বসেরা অলরান্ডার। মঙ্গলবার কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের ব্যাটসম্যান শামসুর রহমানের উইকেট নিয়ে এ রেকর্ড গড়েন তিনি।

এবারের বিপিএল শুরুর আগে ৬২ ম্যাচে সাকিবের উইকেট ছিল মোট ৮৩টি উইকেট। ফলে ১০০ উইকেটের মাইলফলক স্পর্শ করতে তার প্রয়োজন ছিল আরও ১৭টি উইকেট। মঙ্গলবারের আগে চলতি বিপিএলে ৭ ম্যাচ খেলে ১৪ উইকেট পান সাকিব। মঙ্গলবার তামিম ইকবাল, শহীদ আফ্রিদি ও শামসুর রহমানের উইকেট নিয়ে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ ১৭টি উইকেট বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি ও টেস্ট দলপতির দখলে

dt37dt.jpg

সব তারকার ভিড়েও দেশের সুপারস্টার, বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের ওপরই ভরসা রাখছে ঢাকা ডায়নামাইটস। গতকাল দলটির কোচ খালেদ মাহমুদ সুজন বলেছেন, সাকিব পারফরম করলে সে একাই পার্থক্য গড়ে দিতে পারে।

এবারের বিপিএল নিয়ে কথা বলতে গিয়ে সুজন বলছিলেন, এখানে প্রতিটা দল, প্রতিটা ম্যাচ খুব গুরুত্বপূর্ণ। সেভাবেই এগোতে চান তারা। ভুল যথাসম্ভব কম করতে চান। আর ভরসাটা সাকিবের ওপর রাখতে চান, ‘প্রতিটা ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ, প্রতিটা দলই শক্তিশালী থাকবে, আমাদের ভুল খুব কম করতে হবে। যত ভুল কম হবে ততো ভালো হবে, দিন শেষে প্রথম চারে যাওয়া মূল লক্ষ্য থাকবে। এরপর চ্যাম্পিয়ন হওয়া লক্ষ্য, এছাড়া আমাদের অধিনায়ক সাকিব অনেক ফর্মে আছে। এটা অনেক বড় একটা ব্যাপার। সে এখন দারুণ নেতৃত্ব দিচ্ছে এটাও অনেক বড় কিছু। সাকিব সেভাবে খেললে আমি মনে করি সে একাই অনেক কিছু করতে পারে।’

সুজন বলছিলেন, সবগুলো দলই এবার বিপিএলে শক্তিশালী। তাই কাউকে ছোট বা কাউকে বড় করে দেখছেন না তারা। বাংলাদেশের সাবেক এই অধিনায়ক মনে করেন, সবগুলো দলের শিরোপা জয়ের সম্ভাবনা আছে, ‘কম্বিনেশনের উপর নির্ভর করে কোন টিম কেমন করবে। সব দলই শক্তিশালী, কাউকে ছোট করে দেখার কোনো অবকাশ নেই। আমি মনে করি সবার মধ্যেই সেই অ্যাবিলিটি আছে শিরোপা জেতার।’

তবে এই এতো দলের ভিড়ে নিজেরা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্যই লড়াই শুরু করবেন বলে সুজন আশা শোনালেন। তিনি মনে করেন, তাদের দলটা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্য উপযুক্ত অবস্থায় আছে, ‘চ্যাম্পিয়ন হওয়ার প্রত্যাশা নিয়েই শুরু করব ইনশাআল্লাহ্। এই ফরম্যাটে মমেন্টামটা এত তাড়াতাড়ি বদলে যায় আসলে সেটা আবার ফিরিয়ে আনা কষ্টকর। তাই প্রতিটা খেলার জন্যই মোমেন্টামটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। আপনি যেটা বললেন আমাদের দল ভালো, আমাদের বিদেশি ক্রিকেটারের কালেকশনও ভালো, আমাদের কম্বিনেশনও খুব ভালো মাশআল্লাহ।’

এবার বিপিএলটা এক অর্থে একটু অন্যরকম। এবার বিপিএলে ফিরছেন আশরাফুল। এই ঢাকার হয়ে ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে নিষিদ্ধ ছিলেন সাবেক এই জাতীয় দল অধিনায়ক। সুজন মনে করেন, এই ফেরাটা আশরাফুলের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। এবার আশরাফুল নিজেকে প্রমাণের আরেকটা সুযোগ পাচ্ছেন, ‘আমি মনে করি আশরাফুলের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। বিপিএলে আশরাফুল আসার চেয়ে তাঁর জন্য বিপিএল বেশি গুরুত্বপূর্ণ। এত বছর পর সে ফিরে এসেছে। বাংলাদেশের এক সময়ের সবচেয়ে আশ্চর্য বালক ছিল আশরাফুল। নিষেধাজ্ঞার জন্য মাঠে ফিরতে পারেনি সে, অবশ্যই তাঁর জন্য মাঠে ফিরে আসাটা গুরুত্বপূর্ণ। ছোটবেলা থেকেই খেলা পাগল একটা ছেলে সে। আমি মনে করি এই বিপিএলটা তাঁর জন্য অনেক বড় সুযোগ নিজেকে প্রমাণ করার।’

dt08dt.jpg

দেখতে দেখতে শেষ হয়ে গিয়েছে ২০১৮ সাল। উৎসবের আমেজে নতুন বছর ২০১৯ সালকে স্বাগত জানিয়েছে বাংলাদেশসহ সারাবিশ্ব। এ আমেজ থেকে নিজেকে দূরে রাখেননি বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক ও উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নিজের অফিসিয়াল পেজে নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানিয়ে নিজের হাস্যোজ্জ্বল ছবি আপলোড করেছেন দেশসেরা এ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান।

নিজের ভক্ত-সমর্থকদের প্রতি শুভেচ্ছা জানিয়ে মুশফিক লিখেছেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ! ২০১৮ সালটা দারুণই না কাটলো! বছরের শেষে এসে আমি সর্বশক্তিমান আল্লাহর কাছে এই দোয়া করছি যে তিনি আমাদের সকলের গোনাহ মাফ করে দিন এবং আমাদের ঈমান আরও শক্ত করে দিন। নতুন বছরের প্রতিটা দিন সবাই নিজেদের আরও ভালো করার লক্ষ্যে এগিয়ে যাবো। সবাইকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা।’

সবাইকে শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি গতবছর তথা ২০১৮ সালের সেরা পাঁচটি মুহূর্ত বেঁছে নিয়েছেন মুশফিক। পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো মুশফিকের সেরা পাঁচ :

Mushfiq

নিজেদের সবচেয়ে বড় জয়
২০১৮ সালের শুরুটা হয়েছিলো দুর্দান্ত এক জয়ে। শ্রীলঙ্কাকে ১৬৩ রানে হারানো এবং নিজেদের ওয়ানডে ইতিহাসের সবচেয়ে বড় জয় অর্জন করা। মিরপুরে তামিম ইকবাল, সাকিব আল হাসান ও মুশফিকুর রহিম (৫২ বলে ৬২) ব্যাট হাতে ফিফটি হাঁকান, বল হাতে জ্বলে ওঠেন মাশরাফি বিন মর্তুজা ও সাকিব।

Mushfiq

টি-টোয়েন্টিতে রান পাহাড় তাড়া করে জয়
কলম্বোতে নিদাহাস ট্রফির ম্যাচে ২১৫ রানের পাহাড় তাড়া করে পাওয়া জয়। এটা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে টাইগারদের সবচেয়ে সফল রান তাড়া করার রেকর্ড। এছাড়াও মাত্র ২৪ বলে ফিফটি করার মাধ্যমে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের পক্ষে দ্বিতীয় দ্রুততম ফিফটির রেকর্ড গড়েন মুশফিক।

Mushfiq

এশিয়া কাপে মুশফিকের ক্যারিয়ার সেরা সেঞ্চুরি ও তামিমের বীরত্ব
হাতে ব্যান্ডেজ থাকা সত্ত্বেও দলের প্রয়োজনে এক হাতেই ব্যাট করতে নেমে যান তামিম ইকবাল। এর সাথে যোগ হয় পাজরের ইনজুরিতে ভুগতে থাকা মুশফিকের ক্যারিয়ার সেরা ১৪৪ রানের ইনিংস। বাংলাদেশ পায় ১৩৭ রানের বিশাল ব্যবধানে জয়। আহত বাঘ বেশি ভয়ংকর- নয় কি?

Mushfiq

এশিয়া কাপে ৯৯ রানের ইনিংস
মাত্র ১ রানের জন্য দারুণ এক সেঞ্চুরি হাতছাড়া। তবে দলের জয় এনে দিয়েছিল সেই ৯৯ রানের ইনিংস। পাকিস্তানের বিপক্ষে এশিয়া কাপের অঘোষিত সেমিফাইনাল ম্যাচে খেলা সে ইনিংসও থাকছে উপরের দিকেই।

Mushfiq

টেস্টে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহ
২০১৯ সাল শুরুর আগে ২০১৮ সালে মুশফিকের সবচেয়ে বড় মাইলফলক ছিলো জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ২১৯ রানের অপরাজিত ইনিংস। সাকিব আল হাসানের ২১৭ রানের রেকর্ড ভেঙে বাংলাদেশের পক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহের রেকর্ডটা সেদিন নিজের করে নেন মুশফিক।

sakibnewr.jpg

এবারের নির্বাচনে মাশরাফির পাশাপাশি আওয়াজ ছিল সাকিব আল হাসানেরও নৌকার প্রার্থী হওয়ার। তবে শেষ মুহূর্তে তিনি ভোটের মাঠে না নেমে আপাতত ক্রিকেট নিয়েই থাকার সিদ্ধান্ত নেন। তবে নৌকার প্রতি নিজের সমর্থন জানতে ভুল করেননি।আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সকলকে নৌকা প্রতীকে ভোট দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

সোমবার রাজধানীর ফার্মগেট কৃষিবিদ ইন্সটিটিউটে ‘আই এম বাংলাদেশ’ শীর্ষক এক অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান।

অনুষ্ঠানে সাকিব বলেন, ওয়ানডের প্রথম ম্যাচে মিরপুর স্টেডিয়ামে আমরা যখন ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে জয়লাভ করেছি তখন গ্যালারিতে ৬ থেকে ৭ হাজার দর্শক নৌকা, নৌকা স্লোগান দিয়েছে। আমি নিশ্চিত দেশের মানুষ নৌকার পক্ষেই কথা বলবে। নৌকায় ভোট দিয়ে উন্নয়নের এ ধারাকে অব্যাহত রাখবেন।

একাদশ সংসদ নির্বাচনে উন্নয়নের পক্ষে ভোট দিতে তরুণদের উদ্বুদ্ধ করার জন্য ‘হ্যাশট্যাগ আই অ্যাম বাংলাদেশ’ বা ‘আমিই বাংলাদেশ’ প্রচারণার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তরুণ নতুন ভোটারদের কাছে এভাবেই নৌকা প্রতীকে ভোট চান ক্রিকেটার সাকিব।

অনুষ্ঠানের মাধ্যমেই আসন্ন জাতীয় নির্বাচনে দেশের শীর্ষ ব্যবসায়ীদের একটি অংশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোট সরকারের পক্ষে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণায় নামলেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন এফবিসিসিআই সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, এমসিসিআই সভাপতি নিহাদ কবীর, ঢাকা চেম্বার সভাপতি আবুল কাসেম খান, বিজিএমইএর সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান প্রমুখ।

musta-20181116093516.jpg

আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে যখন মাঠে গড়াবে পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল), তখন বাংলাদেশ দল ব্যস্ত থাকবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে। তাই সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মোস্তাফিজুর রহমান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদদের ধরে রাখেনি পিএসএলের দলগুলো।

তবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) পরবর্তী মৌসুমের সময় কোনো খেলা নেই বাংলাদেশের, তাই টাইগার ক্রিকেটারদের পাওয়া- না পাওয়া নিয়ে সংশয় নেই দলগুলোর। তবু কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমানকে আগেই ছেড়ে দিয়েছিল তার দল মুম্বাই ইন্ডিয়ানস। তার বদলে দলে নিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকার উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান কুইন্টন ডি কককে।

মোস্তাফিজ দল হারালেও, আইপিএলে তার অগ্রজ সাকিব আল হাসানকে নিজেদের দলে রেখে দিয়েছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। আইপিএলের সব শেষ মৌসুমে হায়দরাবাদের হয়ে ১৭ ম্যাচ খেলে ব্যাট হাতে ২৩৯ রান এবং বল হাতে ১৪ উইকেট নিয়ে দলকে রানারআপ করতে অগ্রণী ভূমিকা রেখেছিলেন সাকিব।

যে কারণে ডেভিড ওয়ার্নার, ইউসুফ পাঠান, রশিদ খান, বিলি স্ট্যানলেক, কেন উইলিয়ামসন, মোহাম্মদ নাবী, ভুবনেশ্বর কুমার, মানিশ পান্ডে, থাঙ্গারাসু নটরঞ্জন, রিকি ভুই, সন্দ্বীপ শর্মা, শ্রিভাস্ত গোস্বামি, সিদ্ধার্থ কাউল, খলিল আহমেদ, বাসিল আহমেদ ও দ্বীপক হুদার পাশাপাশি সাকিব আল হাসানকেও ধরে রেখেছে হায়দরাবাদ।

অন্যদিকে ২০১৮ সালের মৌসুমে মুম্বাইয়ের খুব বেশি ভালো করতে পারেননি মোস্তাফিজ। ৭ ম্যাচে মোটে নিয়েছিলেন ৭টি উইকেট। রান খরচ করেছিলেন ওভারপ্রতি প্রায় সাড়ে আট (৮.৩৬) করে। বোলিং যেমন তেমন সমস্যা ছিল খুবই বাজে ফিল্ডিং করেছিলেন তিনি সেবার। একের পর এক ক্যাচ ছেড়ে মুম্বাইকে কয়েকটা ম্যাচে হারিয়েই দেন। যে কারণে, আইপিএলের মাঝপথ থেকে তাকে বসিয়ে রাখা হয় এবং শেষ পর্যন্ত আর খেলতেই পারেননি তিনি। এ কারণেই হয়তো এবার, তাকে ছেড়ে দিয়েছে মুম্বাই।

taxcard-20181112212655.jpg

এ বছর সর্বোচ্চ করদাতা হিসেবে ট্যাক্স কার্ড পেয়েছেন ১৪১ জন। এর মধ্যে খেলোয়াড় ক্যাটাগরিতে ট্যাক্স কার্ড পেলেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের তিনজন। জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এ কার্ড দেয়া হয়।

সোমবার রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে এক অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত তাদের হাতে ট্যাক্স কার্ড তুলে দেন।

shakib

এনবিআর চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূইয়ার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে ছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। এছাড়া অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান, এফবিসিসিআই সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দীন উপস্থিত ছিলেন।

খেলোয়াড় ক্যাটাগরিতে ট্যাক্স কার্ড পান সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল ও মাশরাফি বিন মর্তুজা।

tamim

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, দেশের জেলা পর্যায়ে ২০১৭-১৮ অর্থবছরে সর্বোচ্চ কর দেয়া ৩৭০ জন এবং দীর্ঘমেয়াদে কর প্রদানকারী ১৪৫ জনসহ মোট ৫১৫ জন করদাতাকে সম্মাননা দেয়া হয় বলে অনুষ্ঠানে জানানো হয়। সংশ্লিষ্ট কর অঞ্চলগুলো তাদের সম্মাননা দেবে।

sakibfb.jpg

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কেনার আগ্রহ ব্যক্ত করে দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে ফোন করলেও শেষ পর্যন্ত ফরম কিনছেন না ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরামর্শেই তিনি মনোনয়ন ফরম কেনা থেকে বিরত থাকছেন।

গণভবন এবং প্রধানমন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

সূত্র জানায়, সাকিব শনিবার রাতে গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে এ বিষয়ে কথা বলেন। তখন প্রধানমন্ত্রী তাকে বলেন, ক্রিকেটকে সাকিবের এখনো অনেক কিছু দেয়ার আছে। তাই তার মনোযোগের সঙ্গে খেলা চালিয়ে যাওয়া উচিৎ। এরপরই সাকিব ফরম না কেনার মনস্থির করেন বলে সূত্র জানায়।

প্রসঙ্গত, আসন্ন একাদশ সংসদে প্রার্থী হতে চেয়ে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কেনার আগ্রহ ব্যক্ত করে শনিবার (১০ নভেম্বর) সকালে দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে ফোন করেন ক্রিকেটার মাশরাফি বিন মর্তুজা ও সাকিব আল হাসান। রবিবার (১১ নভেম্বর) সকাল ১০টায় তাদের আওয়ামী লীগ সভাপতির কার্যালয়ে উপস্তিত হয়ে ফরম কেনার কথা ছিল কিন্তু শেষ পর্যন্ত সাকিব এ সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেন। মাশরাফি যথারীতি সকালে ফরম কিনবেন।

dt008628.jpg

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের ওয়ানডে ম্যাচের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা ও বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, তাঁরা মনোনয়নপত্র সংগ্রহের জন্য আগামীকাল রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় ধানমন্ডি কার্যালয়ে আসবেন।

আজ শনিবার দুপুরে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ তথ্য কর্মকর্তা আবু নাসের প্রথম আলোকে এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেন।

মাশরাফি বিন মুর্তজা ও সাকিব আল হাসান তাঁদের নিজ নিজ জেলা নড়াইল ও মাগুরার নির্বাচনী আসনে ভোটের জন্য মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করবেন বলে জানা গেছে।

এর আগে চলতি বছরের ২৯ মে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ক্রিকেটার মাশরাফি বিন মুর্তজা ও সাকিব আল হাসানের নির্বাচন করার বিষয়ে ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। পরদিন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছিলেন, ‘আগামী বিশ্বকাপের আগে সাকিব ও মাশরাফি রাজনীতিতে সক্রিয় হবেন না।’

saaafg.jpg

‘ড্রাইভার গিয়েছে শিশিরকে ড্রপ করতে। কিন্তু আলাইনা চায় আইসক্রিম খেতে যেতে! কিভাবে যাই?’ নিজের ফেসবুকে এমন ক্যাপশন সহ নিজের ছবি দিয়ে একটি ছবি পোস্ট করেছিলেন সাকিব আল হাসান।

বাংলাদেশ ক্রিকেটের এ তারকার এমন পোস্টের পর হুলস্থুল কান্ড ঘটে গেছে সেই পোস্টে।

তার এমন প্রশ্নবোধক পোস্টের পর উত্তর জমা হয়েছে হাজার হাজার কমেন্ট। আর এই সুযোগটাকে সবচেয়ে বেশি কাজে লাগিয়েছে ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান। তবে প্রশ্ন হল সাকিব কি আইসক্রিম পেয়েছিলেন?

আজ সেটাই জানালেন সাকিব নিজেই। নিজের ফেসবুক ভ্যারিফাইড পেইজে সাকিব একটি ছবি পোস্ট করেন আর তাতে তিনি লিখেন, Finally we got our ice cream.

sakibfb.jpg

ফেসবুকে একটি পোস্ট দিয়ে চরম রসিকতার তোপে পড়েছেন দেশ সেরা অলরান্ডার সাকিব আল হাসান। ইতিমধ্যে পোস্টটির কমেন্ট সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১৩ হাজার। বিশেষ করে পোস্টটির সুযোগ ব্যবহার করেছেন বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পেজ গুলো।
তা ঠিক কি কারণে হঠাৎই এত রসিকতা করছে সাকিব অনুসারীরা? বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি এবং টেস্ট অধিনায়ক পোস্টটির মাধ্যমে মেয়ের আবদার পূরণের একটু সাহায্য চেয়েছিলেন। কিন্তু তা নিয়ে যে অনুসারীরা এত হুমড়ি খেয়ে পড়বে সেটা হয়তো সাকিবের নিজেরও জানা ছিল না।

শনিবার গভীর মনোযোগে মোবাইল চালানোর একটি ছবি আপলোড করেন সাকিব আল হাসান। ছবির ক্যাপশনে লিখেন, ড্রাইভার গিয়েছে শিশিরকে ড্রপ করতে। কিন্তু আলাইনা চায় আইসক্রিম খেতে যেতে! কিভাবে যাই?
পোস্টটি দেওয়া মাত্রই শুরু হয়ে গেছে কমেন্টের ঝড়। তবে অবাক করা ছিল বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের করা কমেন্ট গুলো।
রাইড শেয়ারিংয়ের জনপ্রিয় মাধ্যম ‘পাঠাও’ লিখেছে, হায় সাকিব! আপনার দরকার অলরাউন্ডার এপ। তাহলে আপনি পাচ্ছেন খাবার, কার, বাইক পারসেল এবং অনেক কিছু।
উবার লিখেছে,আমরা আপনাকে সাহায্য করতে চাই।

আবার উবারের কমেন্টেকে রসিকতা করে হোম গার্ডেন প্লান্টস লিখেছে,‘উবার আপনাকে সময় অপচয়ের মোটিভেশন দিচ্ছে। গুগুল ম্যাপ বলছে, ঢাকার অধিকাংশ রাস্তায় এখন জ্যাম। তাই আপনি পাঠাও এর মাধ্যমে আইসক্রিম হোম ডেলিভারি নিয়ে নিন। আর এই সময়টুকু আপনি আলাইনাকে বাসার গাছগুলোর সাথে পরিচয় করিয়ে দিতে পারেন।
হুয়াওয়ে মোবাইলের পেজ থেকে লেখে,ধন্যবাদ আমাদের পাশে থাকার এবং আমাদের ফোন ইউজ করার জন্য।
আবার একটি রেডিও লিখেছে,‘বস আপনি উবার কল করেন আর গাড়িতে উঠে ড্রাইভারকে বলেন এফ এম ৯৪.৪ টিউন করতে।  অন এয়ারে আর জে অলরেডি আলাইনার জন্য আইসক্রিম অর্ডার করে গান গাইতেছে।

তবে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যম গুলোর সঙ্গে পাল্লা দিতে ভুল করেননি সাকিব অনুসারীরাও। আবদুল নামের একজন লিখেছেন,‘তাসকিন ইদানিং ভালই ড্রাইভ করে, সহজ রাইড এ তাসকিন কে নক দিন ভাই, দেয়ার আগেই তিনি হাজির।’
ফারজানা নিশি লিখেছেন, একটু কষ্ট করে হেটে নিয়ে আসুন..মেয়ের জন্য এতটুকু তো করাই যায়,দোকান নিশ্চই বাসার নিচেই পাবেন। এছাড়াও হাজার হাজার কমেন্ট করে পোস্টটি নিয়ে রসকিতা করে সাকিব ভক্তরা।